চীন-ভারত সঙ্কট: মস্কোর বৈঠক কি সমাধানের সূচনা হতে পারে?

আফরোজা, বিশেষ প্রতিনিধি

৫-৯-২০২০

This image is not found

১৫ই জুন রাতে লাদাখ সীমান্তে  চীন ও ভারতীয় সৈন্যদের মধ্যে রক্তক্ষয়ী এক সংঘর্ষের পর দুই দেশের চারজন প্রভাবশালী মন্ত্রী এই প্রথম মুখোমুখি হচ্ছেন মস্কোতে।জানা গেছে, এ সপ্তাহে রাশিয়ার রাজধানী মস্কোতে সাংহাই সহযোগিতা সংস্থার (এসসিও) মন্ত্রী পর্যায়ের বৈঠকে ইতোমধ্যেই সেখানে গেছেন ভারতের প্রতিরক্ষামন্ত্রী রাজনাথ সিং।
বৈঠকে আরো যোগ দেবেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী এস জয়শঙ্কর। ঐ সম্মেলনে থাকবেন এই জোটের প্রধান উদ্যোক্তা চীনের প্রতিরক্ষামন্ত্রী ওয়ে ফেংহি এবং পররাষ্ট্রমন্ত্রী ওয়াং ই।

ভারতের সরকার কিছু না বলা হলেও চীনা কম্যুনিস্ট পার্টির মুখপাত্র হিসাবে বিবেচিত গ্লোবাল টাইমসের প্রধান সম্পাদক টুইট করেছেন।এসসিও জোটের বৈঠকের বাইরে শুক্রবার রাতে মস্কোতে ভারত ও চীনের প্রতিরক্ষামন্ত্রীরা আলাদাভাবে বসে সীমান্ত সংকট নিয়ে কথা বলতে পারেন।

এছাড়া, বৃহস্পতিবার দিল্লিতে ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী এস জয়শঙ্কর নিজে জানিয়েছেন মস্কোতে ১০ই সেপ্টেম্বর তিনি চীনা পররাষ্ট্রমন্ত্রী ওয়াং ই‘র সাথে বৈঠক করবেন।মি জয়শঙ্কর বলেন, তিনি চীনা পররাষ্ট্রমন্ত্রীকে ব্যক্তিগতভাবে অনেকদিন ধরে চেনেন, সুতরাং “আমাদের দুজনের মধ্যে অর্থপূর্ণ কথাবার্তা হওয়া সম্ভব।“

তবে মি. জয়শঙ্কর স্বীকার করেন, চীনের সাথে এখন যে সঙ্কট ভারতের তৈরি হয়েছে তার গভীরতা এবং বিপদকে খাটো করে দেখার কোনো উপায় নেই কিন্তু, তার মতে, “কূটনীতি ছাড়া এ সমস্যার সমাধানের বিকল্প কিছু নেই।“

কিন্তু মস্কোতে লাদাখ সংকট নিরসনের সূচনা কি আদৌ হতে পারে?

এই বিভাগের আরও